বিশ্বকাপের বাছাই পর্বে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ

বিশ্বকাপের বাছাই পর্বে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ

নিউজডেস্ক২৪: সেমি-ফাইনালে আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে গত বৃহস্পতিবারেই চতুর্থবারের মতো নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মূল পর্ব নিশ্চিত করে বাংলাদেশ। ছেলেদের ক্রিকেটের দুর্দিনে মেয়েদের ক্রিকেটের এমন একটা জয় নিশ্চয় অনুপ্রেরণা জোগাবে সাকিব-মিরাজদেরও।

গ্রুপ পর্বে যুক্তরাষ্ট্র, পাপুয়া নিউগিনি আর বাছাই পর্বের স্বাগতিক দল স্কটল্যান্ডকে হারিয়ে সেমি-ফাইনালে আয়ারল্যান্ডের মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ। ওই ম্যাচে আইরিশদের ৪ উইকেটে হারিয়ে ফাইনালে আজ থাইল্যান্ডের মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ।

বিশ্বকাপ আগে নিশ্চিত করলেও আজকের ম্যাচটা ছিল নিজেদের সেরা প্রমাণের ম্যাচ। এই লড়াইয়ে বাংলাদেশের মেয়েরা ঠিকই সেরা প্রমাণ করেছে নিজেদের।

ফোর্থহিলের ডান্ডিতে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ। ব্যাটিংয়ে নেমে দুই ওপেনার সানজিদা ইসলাম আর মুর্শিদা খাতুনের ব্যাটে দুর্দান্ত সূচনা পায় বাংলাদেশ।

দশ ওভারে ৬৮ রান করে এগারো তম ওভারের প্রথম বলে ৩৩ রান করে সাজঘরে ফেরেন মুর্শিদা। মুর্শিদা বিদায় নিলেও সানজিদার একের পর বাউন্ডারি-ওভার বাউন্ডারিতে বড় সংগ্রহের দিকে এগোয় বাংলাদেশ।

শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত টিকে থেকে সানজিদা তুলে নেনে ৬০ বলে ৭১ রান। তার ইনিংসে ছিল ৬টি চার আর ৩টি ছয়। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারে বাংলাদেশের রান হয় ৫ উইকেটে ১৩০ রান।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে শায়েলা-নাহিদাদের বোলিং তোপে দিশেহারা হয়ে পড়ে থাই নারীরা। প্রথম পাঁচ ব্যাটসম্যানের কাছ থেকে যথাক্রমে ১,৫,৩,৫ রান আসে। থাই ব্যাটসম্যানরা ২০ ওভার ব্যাটিং করলেও লক্ষ্যে পৌঁছানোর আগেই থেমে যেতে হয় তাদের। ৭ উইকেট হারিয়ে তুলতে পারে ৬০ রান মাত্র।

দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেন ওংপাকা লিংপ্রাসার্ট ১১ আর রাতানাপোর্ন পাডুগ্লার্ড ১৫ রান। বাংলাদেশের হয়ে ২টি করে উইকেট নেন নাহিদা আকতার ও শায়েলা শারমিন। ১টি করে উইকেট নেন সালমা খাতুন ও খাদিজাতুল কোবরা।