মৃত্যুর গন্ধ পান যে নারী!

মৃত্যুর গন্ধ পান যে নারী!

নিউজডেস্ক২৪: মৃত্যু এক রহস্যময় বিষয়। কে কখন মারা যাবে, তার কোনো নিশ্চয়তা নেই। তবে অস্ট্রেলিয়ার এক নারীর দাবি, তিনি আগেভাগেই মৃত্যুর গন্ধ পান! আর এতে কার মৃত্যু আসন্ন তাও তিনি অনুমান করতে পারেন, যা বাস্তবেই দেখা যায় বলে তার দাবি।

অস্ট্রেলিয়ার ২৪ বছর বয়সী ওই নারীর নাম আরি কালা। পেশায় তিনি একজন মনোবিদ। তার দাবি, ১২ বছর বয়সে প্রথম নিজের ভেতরে থাকা অতীন্দ্রিয় এই শক্তির সন্ধান পান তিনি। এক আত্মীয়ের মৃত্যুশয্যায় তিনি আচমকাই আশ্চর্য এক গন্ধ পান। কিন্তু বালিকা আরি লক্ষ করেন, আর কেউ ওই গন্ধ পাচ্ছে না। কিছু দিন পরেই ওই আত্মীয় মারা যান। এর পর আরি লক্ষ করেন, কোনও বিশেষ ব্যক্তির কাছে গেলে তিনি ওই গন্ধ পাচ্ছেন। এবং সেই ব্যক্তি কয়েকদিনের মধ্যেই মারা যাচ্ছেন! নিজের এই ষষ্ঠ ইন্দ্রীয়র অলৌকিক ক্ষমতা তখনই বুঝতে পেরে যান আরি।

আরও পড়ুনঃ বয়স ১০৪, সেচ্ছামৃত্যু বেছে নিতে দেশ ছাড়লেন বিজ্ঞানী

এর পর এক দশকেরও বেশি সময় কেটে গেছে। এই আশ্চর্য ক্ষমতায় বহু মৃত্যুকে সম্যক অনুধাবন করেছেন আরি। মৃত্যুর আগাম সন্ধান পাওয়ার আশ্চর্য ক্ষমতা নিয়ে বহু ছবি বা সাহিত্যকর্ম হয়েছে। কিন্তু আরি কোনও সিনেমা বা উপন্যাসের চরিত্র নন। তার দাবি, তার এই অভিজ্ঞতা একেবারেই বাস্তব। আর সেই অভিজ্ঞতা নিয়েই সুন্দরী এক যুবতী হয়েও তিনি যেন বাস করেন এক রহস্যের অন্তরমহলে। নিজের অসহায়তাও খুব ভাল করে জানেন আরি। তিনি জেনে গিয়েছেন, মৃত্যুর আগাম আভাস পেলেও তাকে আটকানোর কোনও ক্ষমতা তার নেই। মনোবিদের কাজ করার আগে একটি সংস্থায় সেক্রেটারির কাজ করতেন তিনি। কিন্তু অচিরেই বুঝতে পারেন এই কাজ তার জন্য নয়। তার পরই তিনি পেশা পরিবর্তন করেন। নিজের মনের ওই রহস্যজনক আচরণকে সামনে রেখেই অন্যের মনের সমস্যার সমাধান করেন এই যুবতী। যিনি জানেন, আগে থেকে বুঝতে পারা যাক আর না পারা যাক— সকলের কাছেই মৃত্যু এক অবশ্যম্ভাবী গন্তব্য। নিয়তিকে অতিক্রম করার ক্ষমতা যে কারও নেই, তা স্পষ্ট করে জানিয়েছেন আরি।